Wednesday, October 21, 2015

অষ্টমীর প্ল্যান

- কিচি, অ্যাই কিচি।

- এত রাত্রে মেয়েদের ফোন করা? বলব বড়দের?
- সব সময় ধমক দিস কেন?
- তো কি বাহবা দেব? অসভ্য। মিলনবাবু না বলেছেন রাত জেগে অঙ্ক প্র‍্যাক্টিস করতে?
- ট্রিগোনোমেট্রি নিয়ে বসেছিলাম।
- তাহলে ফোন করলি কেন?
- কাল দেখা করবি? অঞ্জলি দিয়ে? বালক সঙ্ঘের প্যাণ্ডেলে?
- পাড়ার পুজো ছেড়ে বালক সঙ্ঘের প্যাণ্ডেলে ডাকছিস? ইয়ার্কি হচ্ছে? বলব বাবাকে?
- কথায় কথায় খালি বাবা। যা ভাগ।


**

- অ্যাই, দীপু! ফোন কাটলি কেন?
- ট্রিগোনোমেট্রি করছি। ডিস্টার্ব করিস না।বাজে কথা বলে সময় নষ্ট করিস না।
- চুপ কর।
- ফোন রাখ কিচি। নয়ত বাবাকে বলে দেব যে তুই আমার ট্রিগোনোমেট্রিতে ডিস্টার্ব করছিস।
- তুই আমায় যা ভাগ বলিস কোন সাহসে?
- না মানে...।
- মানে কী? তুই আমায় ভাগ বলছিস?
- না। মানে। যা ভাগটাটা ঠিক বাঙলায় বলিনি।
- মানে?
- চিকিপুদী ভাষায় যা ভাগ মানে...।
- চিকিপুদী ভাষা? চড় মারব?
- মা কালীর দিব্যি। চিকিপুদী এক লুপ্ত বলিভিয়ান প্রজাতির নাম। তাদের ভাষায় যা ভাগ মানে দেখা কর প্লীজ।
- তোর লজ্জা করে না বালক সঙ্ঘের প্যাণ্ডলে ডাকতে?
- না মানে...।
- প্যাণ্ডেলের পিছনে। আইসক্রিম পার্লার। তুই না টুইশানি করিস?
- হেহ!
- আর শোন, মা কালী তোকে ট্রিগোনোমেট্রিতে ফেল করাবে।
- হেহ!
- আর শোন।
- কী?
- স্ট্রেট অঙ্কে ফোকাস কর। মিলনবাবু বলেছেন।
- হেহ!
- আর শোন।
- কী?
- যা ভাগ।

No comments:

ধপাস

সাঁইসাঁই। সাঁইসাঁই। সাঁইসাঁই। পড়ছি তো পড়ছিই। পড়ছি তো পড়ছিই। পড়ছি তো পড়ছিই। পড়ছি তো পড়ছিই। বহুক্ষণ পর আমার পড়া একটা প্রবল 'ধপ...