Monday, March 2, 2020

লুচিম্যান


১।

দুর্যোধন - ধনসম্পত্তি তো সবই খোয়ালেন দাদাভাই। এখন পরের দান খেলবেন কী বাজি রেখে?

ধর্মপুত্র যুধিষ্ঠির (লুচি বেগুনভাজা মুখে দিয়ে) - তাই তো হে। এ তো মহাসমস্যায় পড়া গেল। বাজি রাখতে না পারলে তো আবার পাশার টেস্টম্যাচ ছেড়ে ছেড়ে টুয়েন্টি-নাইনের টিটুয়েন্টি খেলতে হবে। রোব্বার সক্কাল সক্কাল টুয়েন্টি নাইন ঠিক জমবে না। কী যে বাজি রাখি...।

দুর্যোধন (এক চামচ দুধ-কর্নফ্লেক্স মুখে চালান করে) - আপনার পাতে অতগুলো লুচি বেগুনভাজা পড়ে। ও'গুলোই না হয়ে দাঁওতে রাখুন...।

ধর্মরাজ যুধিষ্ঠির - মুখ সামলে রে রাস্কেল। নিজের পাতের লুচি দিয়ে জুয়ো খেলব? তার চেয়ে বরং...তার চে'বরং...আমার এই ভাইগুলোকে এক এক করে বাজি রাখি...।

২।

কুন্তী (দরজা খোলার আগেই) - পাঁচ ভাই ভিক্ষেতে যা পেয়েছ তা নিজেদের মধ্যে ভাগ করে নিও।

যুধিষ্ঠির - এক মিনিট। আজ আমি ভিক্ষেতে লুচি মোহনভোগ পেয়েছি৷ এর ভাগ চাইলে আমি কালই কৌরবদের কোম্পানিতে ক্লার্ক হিসেবে জয়েন করব। এই বলে রাখলাম। 

৩।

কৃষ্ণ - দ্রোণকে না আটকালে সমূহ বিপদ।

যুধিষ্ঠির - হোক গে বিপদ। তাই বলে ধর্মপুত্র হয়ে মিছে কথা বলব? অসম্ভব। 

কৃষ্ণ - বুড়ো যে'ভাবে যুদ্ধ করছে তা'তে আমাদের সব সৈন্য আজকের মধ্যেই সাবাড় হয়ে যাবে যে।

যুধিষ্ঠির - হোক গে। কিন্তু কেশব, অধর্মে মত দিই কী করে বলো...। বাজারে আমার একটা রেপুটেশন আছে..।

কৃষ্ণ - আরে কী মুস্কিল...যুদ্ধে হারলে তোমার রাজ্য যাবে, মানইজ্জত যাবে...।

যুধিষ্ঠির - ধর্ম তো থাকবে ভায়া৷ রিল্যাক্স৷ 

কৃষ্ণ - হারলে সপরিবারে জঙ্গলে ফেরত যেতে হবে ধর্মপুত্তুর। আর জঙ্গলে তো জানোই, রোব্বারের জলখাবারে লুচি-ছোলারডালের বদলে শাঁকালু আর শসা।

যুধিষ্ঠির - আকাশের রং খয়েরী৷ আমার নাম অরবিন্দ কেজরিওয়াল৷ শুয়োরদের আমি পেখম তুলে নাচতে দেখেছি৷ বুলাও দ্রোণকে। দেখাচ্ছি মিথ্যের ফুলঝুরি কাকে বলে। 

৪।

ঈশ্বর - আসুন ধর্মপুত্র৷ আসুন আসুন। কী সৌভাগ্য আমার। কী সৌভাগ্য৷ নশ্বর মানুষ হয়েও পায়ে হেঁটে স্বর্গে এসে পৌঁছলেন, এ কি কম কেরামতির ব্যাপার? ব্রাভো। ব্রাভো। 

যুধিষ্ঠির - হেহ, থ্যাঙ্কিউ, থ্যাঙ্কিউ৷ তা বলছিলাম যে..।

ঈশ্বর - এ যে কী ফ্যান্টাস্টিক ব্যাপার৷ অমন মহীয়সী দ্রৌপদী পাহাড়ের রাস্তায় ফসকে গেল। নকুল সহদেবের মত স্মার্ট দু'জন টেঁসে গেল। বীর অর্জুন ডাহা ফেল করে নিকেশ হয়ে গেল। আর এমন মহাশক্তিমান ভীম, সেও পুজোপ্যান্ডেলহপিং লেভেল হাঁটাহাঁটির চোটে খতম। এক তুমিই নিশ্চিন্তে হেঁটে স্বর্গলাভ করলে...।

যুধিষ্ঠির - সে'সব তো হল কিন্তু...।

ঈশ্বর - তুমি জিনিয়াস...। তুমি ঘ্যাম। 

যুধিষ্ঠির - আরে ধুর সে'সব তো বুঝলাম৷ দেখুন,সোজাসুজি বলছি। আমি স্রেফ টপ-কোয়ালিটি লুচি ভাজার গন্ধ পেয়ে... একটানা হেঁটে...পাহাড়-পর্বত ডিঙিয়ে..লুচির সুবাসের উৎসে এসে পৌঁছলাম। আপনার হেঁসেল কে সামলায় বলুন দেখি? ভারী চমৎকার লুচি ভাজে তো। আমায় আগে সেই লুচির কাছে নিয়ে চলুন প্লীজ। এদ্দূর হেঁটে এলাম...আর গড়িমসি সহ্য হচ্ছে না।

ঈশ্বর - তুমি সত্যিই মহাত্মা হে যুধিষ্ঠির। গোটা স্বর্গই যে লুচি ভাজার সুবাসে পরিপূর্ণ। ওয়েলকাম ব্রাদার, ওয়েলকাম।

No comments:

অনুরাগের লুডো

অনুরাগবাবু আমার অত্যন্ত প্রিয়৷ তার মূলে রয়েছে "বরফি"। লোকমুখে ও বিভিন্ন রিভিউয়ের মাধ্যমে জেনেছি যে বরফিতে ভুলভ্রান্তি ...