Saturday, July 6, 2013

তস্য তস্য ঈশ্বর

তেমন কিছু নয়। একটি পোকা। কালচে, পুচকে, বিশ্রী; যেমন তারা হয়। আঙুলের ডগায় কেতরে পরে আছে। চলৎশক্তি-হীন বলেই বোধ হয়। অকিঞ্চিৎকর হুল’টির ইতিউতি নড়াচড়ায় বোঝা যায় যে বেঁচে রয়েছে। আয়তনে একটি বাঁশকাঠি চালের দানার চেয়ে দেড়গুনের বেশি  বড় নয়। মুদির দোকান থেকে বয়ে আনা ডালের প্যাকেট থেকে বের হওয়া প্রাণী। দোকানিকে যে রগড়ানি দিতে হবে তা বলাই বাহুল্য। কিন্তু এই পোকাটাকে টুসকি মেরে উড়িয়ে দিতে মন চাইলো না। অতি চমৎকার দেবতা দেবতা ভাব মনে। চটকে দিতে পারি, ক্যারমের স্ট্রাইকার চালানোর ভঙ্গিতে উড়িয়ে দিতে পারি, আলতো চাপে ভবলীলা সাঙ্গ  করে ঝাড় দিয়ে সটকে দিতে পারি। আমি এই পোকাটির ঈশ্বর; আমি রাখলে থাকবে-আমি মারলে মরবে। আমার মুখের সামনে এই মুহূর্তে কেউ আয়না ধরলে  নিজের স্মিত হাসিটুকু দেখতে পারতাম।

------------------------


আমি যে ঘরে বসে, সেই ঘরটা যে পাড়ায়, সেই পাড়াটা যে রাজ্যে, সে রাজ্যটা যে দেশে, সে দেশটা যে গ্রহে, সে গ্রহটা যে মহাবিশ্বে; সে মহাবিশ্বটা আসলে একটি দানার মধ্যে রয়েছে।

দানাটি রয়েছে একটি প্রকান্ড পোকার পেটের ভিতর একটি ক্ষুদ্রকায় জীবাণু হয়ে। সেই পোকাটি অন্য এক দানবের আঙ্গুলে অসহায় হয়ে লেটকে পড়ে আছে। দানবটি মুদি গোছের দোকান থেকে ডাল গোছের কিছু খাদ্য জাতীয় বস্তু নিয়ে এসেছিলো যার মধ্যে থেকে এই পোকাটি বেরিয়েছে। দানবটি বুঝতে পারছে যে সে এখন এই পোকাটির ঈশ্বর; সে চাইলে পোকাটি মরবে; সে রাখলে বাঁচবে।   

-------------------------

ভাবনাটা এই ভিডিও থেকে টুকে নেওয়া - 


No comments:

ধপাস

সাঁইসাঁই। সাঁইসাঁই। সাঁইসাঁই। পড়ছি তো পড়ছিই। পড়ছি তো পড়ছিই। পড়ছি তো পড়ছিই। পড়ছি তো পড়ছিই। বহুক্ষণ পর আমার পড়া একটা প্রবল 'ধপ...